Facebook   Twitter   Google+   RSS (New Site)

রবিবার ২৭ মে ২০১৮, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, অপরাহ্ন

প্রচ্ছদ » নারী ও শিশু 

দুর্গাপুরে প্রেমিক যুগলের রহস্যজনক আত্মহত্যা

দুর্গাপুরে প্রেমিক যুগলের রহস্যজনক আত্মহত্যা
প্রতিনিধি ২৬ মার্চ ২০১৬, ৩:৫৩ অপরাহ্ন Print

রাজশাহী: নগরীর দুর্গাপুরে আম গাছের একই ডালে প্রেমিক যুগল গলায় ফঁস নিয়ে আত্মহত্যা করেছে। তবে এক পরিবারের দাবি তাদের হত্যা করা হয়েছে। এ নিয়ে সৃষ্টি হয়েছে রহস্যের জাল।

শনিবার সকালে তাদের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

তারা হলেন- দুর্গাপুর উপজেলার আমগ্রামের আব্দুল মজিদের ছেলে খোকন ইসলাম (২৩) ও আবু সাইদ বুদনের স্ত্রী তিনা খাতুন (২৭)। এদিকে খোকনের পরিবার দাবি করছে তাদের হত্যা করা হয়েছে।

দুর্গাপুর থানা পুলিশ তাদের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে।

এ ঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে জানিয়ে দুর্গাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) পরিমল কুমার চক্রবর্তী বলেন, এক সন্তানের জননী ছিলেন তিনা। তার সঙ্গে খোকনের পরকীয়া প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। খোকন রাজশাহী মহানগরীর একটি ইলেক্ট্রনিক্সের দোকানে কাজ করতো।

এই সম্পর্কের বিষয়টি জেনে যায় তিনার স্বামী আবু সাঈদ। এরই মধ্যে তিনাকে নিয়ে খোকন শুক্রবার দুপুরে অজানার উদ্দেশে পাড়ি দেয়। তবে তাদের খুঁজতে বের হোন তিনার স্বামী আব্দু সাইদ বুদনসহ তার লোকজন। তারা দিনভর খুঁজেও তিনা ও খোকনের কোনো খোঁজ পাননি বলে রাতে গিয়ে গ্রামের লোকজনকে জানান।

পরে শনিবার খোকন ও তিনার বাড়ির পাশে একটি আম গাছের সঙ্গে দুজনের ঝুলন্ত মরদেহ দেখতে পান এলাকাবাসী। এ সময় পুলিশকে খবর দেওয়া হলে পুলিশ গিয়ে মরদেহ উদ্ধার করে।

ওসি আরও জানান, তিনা ও খোকনের দুজনের কোমর একই ওড়না দিয়ে বাঁধা ছিল। তাদের মরদেহও একই ওড়না দিয়ে ঝুলানো ছিল।

দুজনের কোমর এক সঙ্গে বাঁধার কারণেই বিষয়টি নিয়ে ব্যাপক সন্দেহের সৃষ্টি হয়েছে বলে জানান ওসি।

এদিকে, খোকনের বাবা আব্দুল মজিদসহ পরিবারে সদস্যদের দাবি, তাদের দুজনকে তিনার স্বামীর পরিবারের লোকজন পরিকল্পিতভাবে হত্যা করেছে। দুজনের প্রেমের সম্পর্ক মেনে নিতে না পেরেই তাদের হত্যা করা হয়েছে বলেও দাবি করেন খোকনের পরিবারের লোকজন।

ওসি পরিমল চক্রবর্তী বলেন, অভিযোগের প্রেক্ষিতে বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। হত্যা না আত্মহত্যা ময়নাতদন্ত রিপোর্ট হাতে পেলেই স্পষ্টভাবে জানা যাবে।

ব্রেকিংনিউজ/এসআই



আপনার মন্তব্য

নারী ও শিশু বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত ৩২


উপরে

ব্রেকিং