Facebook   Twitter   Google+   RSS (New Site)

শুক্রবার ১৭ আগস্ট ২০১৮, ২ ভাদ্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, পূর্বাহ্ন

প্রচ্ছদ » নারী ও শিশু 

নবম শ্রেণির মাদরাসা ছাত্রীকে গণধর্ষণ

নবম শ্রেণির মাদরাসা ছাত্রীকে গণধর্ষণ
প্রতিনিধি ১৭ মার্চ ২০১৬, ১১:১২ পূর্বাহ্ন Print

নীলফামারী: নবম শ্রেণির মাদরাসা ছাত্রীকে রাস্তা থেকে তুলে নিয়ে গণধর্ষণ করেছে ৩ বখাটে। এতে ব্যাপক রক্তক্ষরণে গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়ে ধর্ষিতা। তাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বুধবার বিকালে নীলফামারীর কিশোরগঞ্জ উপজেলার অবিলের বাজার নামক এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, ধর্ষিতা উপজেলার বড়ভিটা ইউনিয়নের মেলাবর ইউছুফিয়া দাখিল মাদরাসার নবম শ্রেণির ছাত্রী। তার বাবা একজন ভটভটিচালক। গ্রামের বাড়ি জেলার জলঢাকা উপজেলার কৈমারী ইউনিয়নের টটুয়াপাড়ায়।

ওই ছাত্রী কিশোরগঞ্জ উপজেলার কৈমারী ফতেপুর গ্রামে নানার বাড়ি থেকে লেখাপড়া করতো। ধর্ষকরা বর্তমানে পলাতক রয়েছে বলে জানা গেছে।

ধর্ষিতার পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, বুধবার বিকালে মাদরাসা ছুটির পর নানার বাড়ি ফেরার পথে ওই ছাত্রীর সঙ্গে দেখা হয় তার পূর্ব পরিচিত মারুকুল ইসলাম (৩০) নামের এক পিকআপ চালকের। বাড়িতে পৌঁছে দেয়ার কথা বলে মারুকুল ছাত্রীকে পিকআপে তুলে নেয়। তার পিকআপে পূর্ব হতেই অপর দুই যুবক তার যাত্রী হিসেবে ছিল।

পরে মেয়েটিকে অবিলের বাজারের অদূরে এক ভুট্টা ক্ষেতে নিয়ে তারা ৩ জন মিলে পালাক্রমে ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়। এসময় মেয়েটি অচেতন অবস্থায় সেখানে পড়েছিল।

এদিকে ঘটনার পর ওই ক্ষেতের পাশ দিয়ে যাওয়া এক পথচারী মেয়টিকে দেখতে পেয়ে গ্রামের মানুষকে জানালে মেয়ে পরিবার ও এলাকাবাসী ভুট্টা ক্ষেত থেকে মেয়েটিকে বিবস্ত্র অবস্থায় উদ্ধার করে। উদ্ধারের পর রাতেই ধর্ষিতাকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

জলঢাকা উপজেলার কৈমারী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান কহিনুরজ্জামান লিটন বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

তবে থানা পুলিশ জানিয়েছে, তাদের কাছে এখনও কেউ লিখিত অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ব্রেকিংনিউজ/এইচএস



আপনার মন্তব্য

নারী ও শিশু বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত ৩২


উপরে

ব্রেকিং