Facebook   Twitter   Google+   RSS (New Site)

শুক্রবার ২৩ আগস্ট ২০১৯, ৮ ভাদ্র ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, অপরাহ্ন

প্রচ্ছদ » অনুসন্ধান 

অপহরণের পর পালিয়ে আসার লোমহর্ষক গল্প!

অপহরণের পর পালিয়ে আসার লোমহর্ষক গল্প!
ছবি: ব্রেকিংনিউজ
মোহাম্মাদ মানিক হোসেন ১৬ জানুয়ারী ২০১৬, ১০:৩৬ পূর্বাহ্ন Print

চিরিরবন্দর (দিনাজপুর): হাবিবুর রহমান (২০)। দিনাজপুরের চিরিরবন্দর উপজেলার রাণীরবন্দর এলাকায় তার বাড়ি। হাবিবুর রহমান একজন ওয়ার্কশপের কর্মচারী। তিনি অপহরণের শিকার হয়েছিলেন। কিন্তু ভাগ্যক্রমে জীবন নিয়ে ফিরেছেন সুস্থভাবে। পরে অপহরণকারীদের হাত থেকে কৌশলে ফিরে আসার সেই লোমহর্ষক গল্প জানিয়েছেন তিনি নিজেই।

হাবিব ব্রেকিংনিউজকে জানান, উপজেলার রাণীরবন্দর সুইহারী বাজারের কংগ্রেস মাদরাসার সামনে ইব্রাহীম ইঞ্জিনিয়ারিং ওয়ার্কশপের কর্মচারী তিনি। প্রতিদিনের ন্যায় ওয়ার্কশপে কাজ সেরে বাসায় ফেরার প্রস্তুতি। পথে সুইহারী বাজারের এক দোকানে ওষুধ কেনার জন্য যাওয়ার সময় নুরুল ইসলাম চেয়ারম্যানের তেল পাম্পের সামনে তিনজন লোক তার নাকে কী যেন লাগিয়ে দেয়। এর পর শুধু মনে আছে তাকে কারা যেন নিয়ে যাচ্ছে।

তিনি জানান, এরপর রাণীরবন্দর পল্লী বিদ্যুৎ অফিসের সামনে একটি মাইক্রোবাসে তাকে তুলে কালো কাপড় দিয়ে চোখ-মুখ ও হাত-পা বেঁধে দেয়া হয়। এর পর আর কিছু মনে করতে পারছেন না।

সন্ধ্যা প্রায় ৭ টার পরে জ্ঞান ফেরে হাবিবের। দেখতে পান মাইক্রোবাসে বসে আছেন। তার হাত-পা খোলা। তবে পাশে দু’জন অপহরণকারীর সদস্য বসা।

জীবন রক্ষার শেষ চেষ্টা করার এই তো সুযোগ! এটা ভেবে ওই দুইজনকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দৌড় শুরু করেন যুবক হাবিব। পাশের একটি ঝোপে লুকিয়ে পড়েন। অপহরণকারীরাও পিছু নেয়। তারাও ঝোপের মধ্যে প্রবেশ করে। খোঁজা-খুজিও করে অনেক। কিন্তু রাখে আল্লাহ মারে কে! হাবিবের ক্ষেত্রেও এমনটিই হয়েছে। শেষ পর্যন্ত অপরহরণকারীদের চোখ ফাঁকি দিয়ে পালিয়ে রক্ষা হয় তার।

হাবিব বলেন, কিছুক্ষণ খোঁজা-খুজির পর চলে যায় তারা। পরে সঙ্গে থাকা মোবাইল ফোনটি বের করে ওয়ার্কশপের মালিক মোফাজ্জল হোসেন বেগকে ঘটনাটি জানাই। তখন তিনি ঠাকুরগাঁয়ের কালিবাড়ি ব্রিজের বিএসএফ ক্যাম্পের সামনে ছিলেন।

পরে নাবিল গাড়ির সাথে আলোচনা করে রাত সাড়ে ১১টায় রাণীরবন্দরে এসে পৌঁছান হাবিবুর রহমান।

এদিকে অপহরণের এ ঘটনাটি এলাকায় জানাজানি হলে বেশ চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়। এ ধরনের অপহরণের ঘটনা রানীরবন্দরে আরো বেশ ক’টি ঘঠেছে বলেও জানান স্থানীয়রা। অপহরণকারীদের গ্রেফতারে আইন শৃ্খংলা রক্ষাকারী বাহিনীর হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন এলাকাবাসী।

তবে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক পুলিশ কর্মকর্তা বলেছেন, বিষয়টি আমরা শুনেছি। তবে কেউ অভিযোগ না করলে পুলিশ কোনো উদ্যোগ নিবে না।

ব্রেকিংনিউজ/এইচএস



আপনার মন্তব্য

অনুসন্ধান বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত ৩২


উপরে

ব্রেকিং