Facebook   Twitter   Google+   RSS (New Site)

শনিবার ২৩ জুন ২০১৮, ৯ আষাঢ় ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, অপরাহ্ন

প্রচ্ছদ » জাতীয় 

হাইটেক পার্কসহ ৮টি প্রকল্প একনেকে অনুমোদন

হাইটেক পার্কসহ ৮টি প্রকল্প একনেকে অনুমোদন
প্রতিবেদক ২৯ মার্চ ২০১৬, ১:৪৮ অপরাহ্ন Print

ঢাকা: কালিয়াকৈর হাইটেক পার্ক এবং অন্যান্য হাইটেক পার্কের জন্য প্রকল্পের অনুমোদন দিয়েছে একনেক। এ জন্য আন্তর্জাতিক মানের ডেভেলপার নিয়োগ দেয়া হবে। সেইসাথে মুন্সিগঞ্জে মুদ্রণ শিল্পনগরী স্থাপনসহ দেড় হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে ৮টি প্রকল্পের অনুমোদন দেয়া হয় একনেক বৈঠকে।

মঙ্গলবার সকালে জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি (একনেক)। শেরে বাংলানগর এনইসি সম্মেলন কক্ষে প্রধানমন্ত্রী ও একনেক চেয়ারপারসন শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে নিয়মিত সভায় এ অনুমোদন দেয়া হয়।

প্রকল্পগুলোর মধ্যে আইসিটি সংক্রান্ত আধুনিক হাইটেক শিল্প স্থাপনের জন্য বিশ্বমানের পরিবেশ নিশ্চিতকরণের জন্য অফসাইট এবং অনসাইট অবকাঠামো তৈরি করা হবে। এ জন্য মোট ব্যয় নির্ধারণ করা হয়েছে ৩৯৪ কোটি টাকা।

এটি বেসরকারি সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্ক তৈরিতে সহায়তা করবে। ঢাকা, গাজীপুর, যশোর, খুলনা, সিলেট, রাজশাহী ও চট্টগ্রাম হাইটেক পার্কেও প্রকল্পটি বাস্তবায়িত হবে।

এটিসহ একনেক সভায় মোট ৮টি প্রকল্প অনুমোদন দেয়া হয়েছে। প্রকল্পগুলোর মোট ব্যয় ১ হাজার ৪৪২ কোটি ৪১ লক্ষ টাকা। এর মধ্যে প্রকল্প সাহায্য ৪৬৩ কোটি ৮৫৫ লক্ষ টাকা। বাকি টাকা সরবরাহ করবে সরকার (জিওবি)।

একনেক সভায় ডেসকো এলাকায় সুপারভাইজারি কন্ট্রোল ও ডাটা অ্যাকুইজিশন (স্ক্যাডা) সিস্টেম স্থাপন প্রকল্পেরও অনুমোদন দেয়া হয়েছে। প্রকল্পের মোট ব্যয় ১৫২ কোটি ২০ লক্ষ টাকা।

ঢাকা, গাজীপুর, নারায়নগঞ্জ ও পূর্বাচলে প্রকল্পটি বাস্তবায়িত হবে। স্ক্যাডা একটি অত্যাধুনিক পদ্ধতি এর মাধ্যমে দূর নিয়ন্ত্রণ কক্ষ থেকে বিদ্যুৎ সরবরাহ ও নিয়ন্ত্রণ করা হবে।

বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের এ সব তথ্য জানান পরিকল্পনা মন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল।

পরিকল্পনা মন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেন, ‘স্ক্যাডা একটি অত্যাধুনিক সিস্টেম যার মাধ্যমে দূর নিয়ন্ত্রণ কক্ষ হতে বিদ্যুৎ সরবরাহ নিয়ন্ত্রক করাসহ দ্রুততম সময়ের মধ্যে বিদ্যুতের সকল প্যারামিটার যেমন-ভোল্টেজ, কারেন্ট, ফ্রিকোয়েন্সি, পাওয়ার ফ্যাক্টরসহ কিলোওয়াট ও কিলোভার পর্যবেক্ষণ করা যায়। উপকেন্দ্র হতে রিপোর্ট টার্মিনাল ইউনিট বা গেটওয়ে এর মাধ্যমে তথ্যাদি সংগ্রহপূর্বক স্ক্যাডা নিয়ন্ত্রণ কক্ষের সার্ভারে সংরক্ষিত হয়। এ সকল তথ্যাদির পর্যবেক্ষণ, পর্যালোচনা ও বিশ্লেষণের মাধ্যমে নিরাপদ, নির্ভরযোগ্য ও মানসম্মত বিদ্যুৎ গ্রাহক আঙ্গিনায় পৌঁছানো যায়।’

পরিকল্পনা মন্ত্রী জানান, নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভৌত ও একাডেমিক সুবিধা বৃদ্ধিকরণ প্রকল্প অনুমোদন দিতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা অনুশাসন দিয়েছেন যে, বর্জ্য ব্যবস্থাপনা ও জলাশয়ের ব্যবস্থা অবশ্যই থাকতে হবে।

মন্ত্রী বলেন, আমরা ২০২১ সালের মধ্যে আউটসোর্সিং-এর মাধ্যমে অন্তত ২ হাজার মিলিয়ন ডলার আয় করতে চাই।

অনুমোদিত প্রকল্পগুলো হচ্ছে, চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি ও এনিম্যাল সায়েন্সেস বিশ্ববিদ্যালয়ের ২য় ক্যাম্পাস স্থাপন প্রকল্প, এটি বাস্তবায়নে ব্যয় ধরা হয়েছে ২৩৮ কোটি ৮৭ লক্ষ টাকা।

নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভৌত ও একডেমিক সুবিধা বৃদ্ধিকরণ প্রকল্প, এর ব্যয় ধরা হয়েছে ২৩৮ কোটি ৪৮ লক্ষ টাকা।

বাংলাদেশ পরমাণু শক্তি কমিশনের খাদ্য ও বিকিরণ জীববিজ্ঞান সুবিধাদিও আধুনিকীকরণ প্রকল্প, এর ব্যয় ধরা হয়েছে ৪৭ কোটি ৬৭ লক্ষ টাকা।

ডেসকো এলাকায় সুপারভাজরি কন্ট্রোল ও ডাটা এ্যাকুইজিশন (স্ক্যাডা) সিস্টেম স্থাপন প্রকল্প, এর ব্যয় ধরা হয়েছে ১৫২ কোটি ২০ লক্ষ টাকা।

বিসিক মুদ্রণ শিল্পনগরী প্রকল্প, এর ব্যয় ধরা হয়েছে ১৪০ কোটি ৪১ লক্ষ টাকা। কালিয়াকৈর হাইটেক পার্কের উন্নয়ন প্রকল্প, এর ব্যয় ধরা হয়েছে ৩৯৪ কোটি ১৫ লক্ষ টাকা।

সিলেট-সুনামগঞ্জ সড়ক উন্নয়ন প্রকল্প, এর ব্যয় ধরা হয়েছে ১৪০ কোটি ৬৫ লক্ষ টাকা। রুমা-বগালেক-কেওক্রাডং সড়ক উন্নয়ন ১ম পর্যায় নির্মাণ প্রকল্প, এর ব্যয় ৮৯ কোটি ৯৮ লক্ষ টাকা।

ব্রেকিংনিউজ/এইচএস



আপনার মন্তব্য

জাতীয় বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত ৩২


উপরে

ব্রেকিং