Facebook   Twitter   Google+   RSS (New Site)

রবিবার ১৬ ডিসেম্বর ২০১৮, ২ পৌষ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, অপরাহ্ন

প্রচ্ছদ » কৃষি ও পরিবেশ 

বিশ্বের আশ্চর্যজনক পাখি ল্যাইরি (ভিডিও)!

বিশ্বের আশ্চর্যজনক পাখি ল্যাইরি (ভিডিও)!
নিউজ ডেস্ক ০৯ মার্চ ২০১৬, ৫:৩১ অপরাহ্ন Print

ঢাকা: নাম ল্যাইরি বার্ড বা ল্যাইরি পাখি। মানুষের মতো কথা বলতে পারে পাখিটি। ভাবছেন, এতে আশ্চর্য হওয়ার কী আছে? ময়না, টিয়া এমনকী কিছু কিছু শালিক পাখিও তো মানুষের মতো কথা বলতে পারে।

তবে আশ্চর্য হওয়ার মতো খবর হলো ল্যাইরি বার্ড শুধু মানুষের মতো কথাই বলে না, সে যেকোনও শব্দ হুবহু নকল করতে পারে। এবার হয়তো কিছুটা অবাক হচ্ছেন! অবাক হওয়ার মতো বটেই তো।

এবার ল্যাইরি বার্ড সম্পর্কে জানার আগ্রহ হয়তো মনের মধ্যে খোঁচা-খুঁচি করছে, নয় কি? চলুন তাহলে ল্যাইরি বার্ড সম্পর্কে জেনে আসি।

ল্যাইরি বার্ড পরিচিতি
এই পাখির আদি বাসস্থান ক্যাঙ্গারুর দেশ অস্ট্রেলিয়ায়। আমাদের দেশে এই পাখির তেমন নাম ডাক না থাকলেও সুদূর অস্ট্রেলিয়ায় কিন্তু এটি বেশ জনপ্রিয়।

এই পাখিটি চড়ুই প্রজাতির পাখি। বলা চলে এই প্রজাতির সব থেকে বৃহৎ আকৃতির পাখি ল্যাইরি। কিন্তু চড়ুই পাখির মতো এরা খুব একটা উড়াউড়ি পছন্দ করে না। মূলত এরা হেঁটে বেড়াতে পছন্দ করে। এদের আছে শক্তিশালী পা ও লেজ। কিন্তু দেহের তুলনায় পাখা অনেকটা ছোট। তাই নিতান্ত প্রয়োজন না পরলে উড়বার চেষ্টাও করে না। বলতে পারেন অনেকটা ময়ূর, ডাহুক বা মুরগীর মতো।
 
প্রকারভেদ 
এই Lyrebird এর দু’টি প্রজাতি পাওয়া যায়। যার একটিকে বলে সুপার্ব ল্যাইরি বার্ড (Superb Lyrebird) আর অন্যটি হচ্ছে অ্যালবার্টস ল্যাইরি বার্ড (Albert’s Lyrebird)।

এই দুই প্রজাতির মধ্যে Superb Lyrebird আকার আকৃতিতে বড় হয়ে থাকে। Superb Lyrebird এর মধ্যে স্ত্রী ল্যাইরি বার্ড লম্বায় ৭৪-৮৪ সেঃমিঃ এবং পুরুষ ৮০-৮৯ সেঃমিঃ হয়ে থাকে।

আর এই Superb Lyrebird চড়ুই প্রজাতির মধ্যে ৩য় সর্ব বৃহৎ পাখি। আর Albert’s Lyrebird পাখি গুলি Superb Lyrebird পাখি গুলির তুলনায় কিছুটা ছোট হয়ে থাকে। পুরুষ ল্যাইরি বার্ড সর্বোচ্চ লম্বায় ৯০ সেঃমিঃ আর স্ত্রী ল্যাইরি বার্ড ৮৪ সেঃমিঃ পর্যন্ত হয়ে থাকে।

শুধু যে ছোট হয় তাই না। এই Albert’s Lyrebird এর Superb Lyrebird এর মতো সুন্দর পাখাও থাকে না।

আবাস

Superb Lyrebird পাওয়া যায় ভিক্টোরিয়া, নিউ সাউথ ওয়েলস এবং দক্ষিণ পূর্ব কুইন্সল্যান্ডে। এছাড়াও তাসমানিয়ায় ১৯ শতকের প্রথম দিকে এই পাখি খুঁজে পাওয়া যায়। অনেক Superb Lyrebird এখন সংরক্ষিত আছে মেলবর্নের ড্যানডেনং র‌্যাংস ন্যাশনাল পার্ক এবং কিংলেক ন্যাশনাল পার্কে। আর সিডনির দ্য রয়েল ন্যাশনাল পার্কেও রাখা আছে।

অপরদিকে Albert’s Lyrebird খুঁজে পাওয়া যায় অল্প কিছু জায়গায়। এর মধ্যে অন্যতম দক্ষিণ কুইন্সল্যান্ড রেইনফরেস্ট।

বংশ বিস্তার
আগেই বলেছি এরা তেমন একটা উড়াউড়ি পছন্দ করে না। যে কারণে এরা বাসা বানায় মাটিতে। আর সেখানেই ডিম পারে। ডিম ফুটে বাচ্চা বের হতে ৫০ দিন সময় লাগে। পুরুষ পাখিগুলো বেশ আক্রমনাত্মক হয়। এরা নির্দিষ্ট এলাকা নিজের দখলে নিয়ে থাকে। যেখানে অন্য কোন Lyrebird এর প্রবেশ সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ। আর একজন পুরুষ ল্যাইরি বার্ডের নিয়ন্ত্রনে ৭-৮টি স্ত্রী ল্যাইরি বার্ড থাকে।

জীবনকাল
গবেষকরা জানিয়েছেন, পাখিগুলোর জীবন কাল ১৩ বছর পর্যন্ত হয়ে থাকে। আর জন্ম নেয়ার পর পুরুষ ল্যাইরি বার্ড ৬ থেকে ৮ বছরের মধ্যে বংশ বিস্তারের উপযোগি হয়ে ওঠে আর স্ত্রী ল্যাইরি বার্ড ৫ থেকে ৬ বছর বয়সে বংশ বিস্তারের উপযোগি হয়। (সূত্র: ইন্টারনেট)



ব্রেকিংনিউজ/এইচএস



আপনার মন্তব্য

কৃষি ও পরিবেশ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত ৩২


উপরে

ব্রেকিং